শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:০৬ পূর্বাহ্ন
Logo
শিরোনাম :
বিশ্ব চিঠি লেখা প্রতিযোগিতায় প্রথম হবিগঞ্জের গর্ব নুবায়শা “ডিবিসি নিউজ” এর হবিগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি মোঃ ফজলুর রহমান ফার্ষ্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লিঃ অফিসার এর বিদায় সংবর্ধনা মাধবপুর প্রেসক্লােবের সদস্য রিফাত জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির সহসভাপতি নির্বাচিত মাধবপুরের ধর্মঘর ইউনিয়নে মাইমুনা স্পোর্টিং ক্লাবের ফুটবল ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত মাধবপুরে IEIMS শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় শিক্ষকদের ৩ দিন ব্যাপী প্রশিক্ষণের উদ্বোধন মাধবপুরে ক্ষতিগ্রস্থ পল্লী উদ্যোক্তার মাঝে প্রণোদনার চেক বিতরন হবিগঞ্জে কাভার্ড ভ্যান চাপায়া ছয় সিএনজি অটোরিকশা যাত্রী নিহত, আহত ১ মাধবপুর প্রেসক্লাব সাংবাদিকদের সাথে নবাগত ইউএনও-র মতবিনিময় দেশসেরা শ্রেষ্ঠ উপ-সহকারী মেডিকেল অফিসার নির্বাচিত ডাঃ মোঃ ফরাশ উদ্দিন
নোটিশ ::
দৈনিক হবিগঞ্জের বাণী পত্রিকার সকল প্রতিনিধি ও গ্রাহকদের কে আমাদের ফেইজবুক ফেইজ  এ লাইক দিয়া আমাদের সাথে সংযুক্ত থাকার জন‌্য বিশেষ ভাবে অনুরোধ করা হল। আমাদের ফেইজবুক ফেইজ: https://www.facebook.com/habiganjerbani  অনুরুধ ক্রমে: নির্বাহী সম্পাদক,দৈনিক হবিগঞ্জের বাণী।

মাধবপুরে চা বাগানের মেডিক্যাল অফিসারের করোনা সনাক্ত

তোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী / ১১৮৩ বার
আপডেটের সময় : বুধবার, ৬ মে, ২০২০

হবিগঞ্জের বাণী ডেস্ক : হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলায় সুরমা চা বাগানের মেডিক্যাল অফিসার ডাক্তার শওকত আলীর করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে।
বুধবার ( ৬ মে) বিকেলে খবর পেয়ে তেলিয়াপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্সপেক্টর গোলাম মোস্তফা স্থানীয় চেয়ারম্যান সহ গিয়ে তার পরিবার ও হাসপাতাল সংশ্লিষ্ট ১৭ টি বাড়ি লকডাউন করে দিয়েছে।

তিনি বর্তমানে ঢাকায় সিএমএইচে চিকিৎসাধীন আছেন বলে জানা গেছে। ডাক্তার শওকত আলী জানান , গত শুক্রবার ( ১ মে) রাতে নিজের ঘরে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে তারাবী নামাজ পড়ার সময় অসুস্থতা অনুভব করি।পরে আবার শরীর সুস্থ হয়ে যায়। পরদিন শনিবার রাতে আবার অসুস্থ বোধ করলে রবিবার ( ৩ মে) সকালেই চিকিৎসার জন্য ঢাকায় সিএম এইচে চলে আসি। এখানে নমুনা সংগ্রহ করে পরিক্ষার জন্য পাঠালে করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসে।

এখন তার শারীরিক অবস্থা উন্নতির দিকে বলে জানান তিনি। কিভাবে তিনি করোনা আক্রান্ত হয়েছেন তা নিশ্চিত করে বলতে পারেননি। তিনি জানান, আমি চা বাগানের বাইরে কোথাও যাইনি।

তেলিয়াপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্সপেক্টর গোলাম মোস্তফা জানান, মাধবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ আমাকে অবগত করলে আমি ফোর্স নিয়ে সুরমা চা বাগানে ডাক্তারের বাসায় গিয়ে খোঁজ খবর নিয়ে তার বাড়ি ও তার পরিবার সংশ্লিষ্ট ৪ টি বাড়ি এবং হাসপাতাল সংশ্লিষ্ট ১২ টি বাড়ি মোট ১৭ টি বাড়ি লকডাউন করে দিয়েছি।এসময় স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা উপস্থিত থেকে সহযোগিতা করেছেন।

মাধবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা এএইচ এম ইশতিয়াক মামুন জানান, সুরমা চা বাগান কতৃপক্ষ আমাদের জানিয়েছে বাগানের ডাক্তারের করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। তিনি ঢাকায় চিকিৎসাধীন আছেন এবং সেখানেই পরিক্ষা করিয়েছেন।তাই তাকে ঢাকার করোনা রোগী হিসেবে গননা করা হবে। উনার কোন রিপোর্ট আমাদের কাছে আসে নাই। তাই আমাদের হিসেবের মধ্যে উনি আসবেন না।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ
Theme Created By ThemesDealer.Com